আওয়ামী লীগের নেতৃত্বে কারা আসছেন, জানালেন ওবায়দুল কাদের

|

আওয়ামী লীগের ২১-তম জাতীয় সম্মেলন ডিসেম্বরে। এ সম্মেলনের প্রস্তুতি শুরু হয়ে গেছে ইতিমধ্যে। ১০ ডিসেম্বর সম্মেলনের টার্গেট বলে জানিয়েছেন সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী। এরইমধ্যে কেন্দ্রীয় নির্বাহী কমিটিতে পদ পেতে আগ্রহী নেতারা দৌঁড়ঝাপ শুরু করেছেন। সংগঠনের জন্য নিজেদের ত্যাগ ও ভূমিকার কথা নানাভাবে হাইকমান্ডকে জানাচ্ছেন। বুধবার সম্মেলন বিষয়ে কথা বলেছেন দলটির সাধারণ সম্পাদক এবং সড়ক পরিবহন ও সেতুমন্ত্রী ওবায়দুল কাদের।

কেমন নেতৃত্ব সামনে আসছে, এর উত্তরে ওবায়দুল কাদের বলেন, যাদের বিরুদ্ধে চাঁদাবাজি, টেন্ডারবাজির অভিযোগ আছে তারা কোনোভাবেই কমিটিতে পদ পাবে না। যাদের ক্লিন ইমেজ আছে তারাই কেবল নির্বাহী কমিটিতে স্থান পাবেন।

কেন্দ্রীয় সম্মেলনের আগে মেয়াদোত্তীর্ণ জেলা-উপজেলা কমিটির সম্মেলন হবে। দলের জন্য নিবেদিত প্রাণ কর্মীরাই নেতৃত্বে আসবে। আওয়ামী লীগ সভানেত্রী ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা বিতর্কিতদের কমিটিতে জায়গা দেবেন না।

বিএনপি-জামাতের যারা দলে ঢুকেছে তাদের বিরুদ্ধে তদন্ত করে নানা ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে বলে জানান ওবায়দুল কাদের। আরও বলেন, মন্ত্রী এমপিদের অবৈধ সম্পদ থাকলে দুদক তদন্ত করুক। দুদক কয়েকজনের চার্জশিটও দিয়েছে।

এর আগে ওবায়দুল কাদের জানিয়েছিলেন, তিনি আওয়ামী লীগের আগামী কাউন্সিলে প্রার্থী হবেন না। তবে দলের সভাপতি ও প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা যদি চান, তা হলে তিনি ফের সাধারণ সম্পাদকের দায়িত্ব নিতে রাজি আছেন, সম্প্রতি এমন মনোভাবই প্রকাশ করেছেন ওবায়দুল কাদের।









Leave a reply