ট্রাম্পের নীতি যুক্তরাষ্ট্রে দারিদ্র বাড়াবে: জাতিসংঘ দূতের হুঁশিয়ারি

|

প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্পের নীতিমালার কারণে যুক্তরাষ্ট্রে বাড়বে দারিদ্র ও বৈষম্য। শুক্রবার এমন আশঙ্কা প্রকাশ করেন জাতিসংঘের দারিদ্র ও মানবাধিকার বিষয়ক দূত ফিলিপ এস্টন।

তিনি জানান, বর্তমানে প্রতি আটজন মার্কিনীর মধ্যে একাধিক মানুষ দরিদ্র। শুধু তাই নয়, দরিদ্রদের অর্ধেক সংখ্যক মানুষ আবার চরম দারিদ্রসীমার নিচে বসবাস করছেন। তারা কিভাবে এই দুষ্টচক্র থেকে বের হবেন সেটাও জানেন না। এর ওপর  ট্রাম্পের কঠোর নীতিমালা সমাজে দারিদ্র আর বৈষম্য বাড়াচ্ছে।

এস্টনের দাবি, দেশের গণতান্ত্রিক কাঠামোকে হুমকির দিকে ঠেলে দিচ্ছে ট্রাম্প ও তার কিছু কর্মকর্তার আচরণ। সম্প্রতি ক্যালিফোর্নিয়ায় গৃহহীন মার্কিনীদের সাথে সাক্ষাত আর পুয়ের্তো রিকো’র হারিকেন বিধ্বস্ত এলাকায় সফরের পর জাতিসংঘের দূত আনুষ্ঠানিক বিবৃতি দিলেন।

ফিলিপ এস্টন বলেন, ট্রাম্পের ‘আমেরিকান ড্রিম’ দিনদিন একটি প্রতারণায় পরিণত হচ্ছে। কমে আসছে পশ্চিমা উন্নয়ন সূচকের ভিত্তিতে দেশের সামাজিক গতিশীলতা। মৌলিক অধিকারের পাশাপাশি ভোটদান, রাজনীতিতে অংশগ্রহণ এবং মানবাধিকারও হারাচ্ছেন মার্কিনীরা, যা আগে কখনোই দেখা যায়নি।









Leave a reply