চতুর্থ শ্রেণির ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগে শিক্ষক গ্রেফতার

|

চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি
চুয়াডাঙ্গার দামুড়হুদা উপজেলার মজলিশপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ের শিক্ষক শাহীন উদ্দীনের বিরুদ্ধে চতুর্থ শ্রেণির এক ছাত্রীকে ধর্ষণ চেষ্টার অভিযোগ উঠেছে। শনিবার বিকালে স্কুলের একটি কক্ষে ওই শিক্ষার্থীকে ধর্ষণের চেষ্টা করা হয়। এ ঘটনায় ওই শিক্ষার্থীর মা দামুড়হুদা মডেল থানায় মামলা করলে পুলিশ রোববার মধ্যরাতে অভিযুক্ত শিক্ষককে গ্রেফতার করে।

অভিযুক্ত শিক্ষক শাহীন উদ্দীন দামুড়হুদা উপজেলার বিষ্ণুপুর গ্রামের ইসলাম উদ্দীনের ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানান, চুয়াডাঙ্গা জেলার দামুড়হুদা উপজেলার মজলিমপুর সরকারী প্রাথমিক বিদ্যালয়ে দীর্ঘদিন ধরে শিক্ষকতা করেন শাহীন উদ্দীন। ক্লাসের পর স্কুলের একটি কক্ষেই ছেলে মেয়েদের প্রাইভেট পড়ান তিনি।

চতুর্থ শ্রেণির ওই শিক্ষার্থীর অভিযোগ, শনিবার বিকালে প্রাইভেট পড়া শেষে সবাইকে ছুঁটি দিলেও বাড়তি পড়ার কথা বলে তাকে আটকে রাখা হয়। এরপর সবাই ছেলে গেলে অভিযুক্ত শিক্ষক তাকে জোরপূর্বক ধর্ষণের চেষ্টা করেন।

দামুড়হুদা মডেল থানার অফিসার ইনচার্জ ওসি সুকুমার বিশ্বাস জানান, ঘটনাটি অবহিত হওয়ার পর আমরা দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছাই। সেখানে থেকে প্রাথমিকভাবে আমরা অভিযুক্ত শিক্ষককে আটক করে হেফাজতে নিই। পরে রাতে ওই শিক্ষার্থীর মা এ ঘটনায় দামুড়হুদা থানাতে একটি মামলা দায়ের করলে অভিযুক্ত শিক্ষককে গ্রেফতার দেখানো হয়।









Leave a reply