বিশ্বনেতাদের নিষ্ক্রিয়তা মানবজাতিকে ধ্বংসের দিকে নিয়ে যাচ্ছে: প্রধানমন্ত্রী

|

জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলায় বিশ্ব নেতাদের ব্যর্থতা বিশ্বকে ধ্বংসের দিকে নিয়ে যাচ্ছে এমন কথা বললেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। মাদ্রিদে জলবায়ু সম্মেলনের উদ্বোধনী অধিবেশনে তিনি একথা বলেন।

প্রধানমন্ত্রী আরও বলেন, উষ্ণতা ঠেকাতে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়া উচিত। নিরাপদ ভবিষ্যত নিশ্চিত করতে না পারলে ক্ষমা করবে না নতুন প্রজন্ম। তিনি জানান, রোহিঙ্গা শরণার্থীদের কারণে বাংলাদেশে পরিবেশের ঝুঁকি বেড়েছে।

জলবায়ু সম্মেলন বা ‘কপ’ এর ২৫তম অধিবেশন বসেছে। ব্যানার-ফেস্টুন সবখানে আয়োজক হিসেবে নাম চিলির, যদিও রাজনৈতিক অস্থিরতায় সম্মেলন হচ্ছে স্পেনের মাদ্রিদে। এই দুই সপ্তাহব্যাপী সম্মেলনের উদ্বোধনী অধিবেশনে যোগ দেন ৫০ দেশের সরকার ও রাষ্ট্রপ্রধান। সূচনা বক্তব্যে জাতিসংঘ মহাসচিব সতর্ক করেন, আলোচনায় সময়ক্ষেপণের আর সুযোগ নেই। জলবায়ু পরিবর্তনে দেয়ালে পিঠ ঠেকে গেছে বিশ্বের।

জাতিসংঘের মহাসচিব অ্যান্তোনিও গুতেরেস বলেন, আর কত আলোচনা-বৈঠক হবে? উন্নত এবং ধনীদেশগুলো কবে সচেতন হবে? পৃথিবী ধ্বংস হয়ে গেলে? আমরা কেন বুঝতে চাইছি না, দেয়ালে পিঠ ঠেকে গেছে আমাদের। গালভরা বুলি নয়, এখনই যদি কার্যকর ব্যবস্থা না নেয়া হয় তাহলে পৃথিবী ধ্বংস হওয়া ঠেকানো সম্ভব নয়।

জলবায়ু পরিবর্তনের ঝুঁকিতে থাকা দেশগুলোর ফোরামে বক্তব্য রাখেন প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা। তিনি বলেন, উষ্ণতা এখন সবচেয়ে বড় বৈশ্বিক হুমকি।

এরপর জলবায়ু পরিবর্তন বিষয়ক আলোচনায় অংশ নেন, শেখ হাসিনা। এসময় তিনি বলেন, মিয়ানমার থেকে ১১ লাখের বেশি রোহিঙ্গা আশ্রয় নেয়ায় পরিবেশগত ঝুঁকির মুখে বাংলাদেশ।নষ্ট হয়েছে জীবন বৈচিত্র, বন, পাহাড় ও স্থানীয় মানুষের জীবনাচারণ।

সম্মেলনে অংশ নেয়া অন্যান্য নেতারা, জলবায়ু পরিবর্তন মোকাবেলায় কার্যকর পরিকল্পনা এবং ক্ষতিপূরণ তহবিল ইস্যুতে বক্তব্য রাখেন।









Leave a reply