ইউক্রেনকে দেয়া মার্কিন অস্ত্র জঙ্গিদের হাতে পড়ার শঙ্কা

|

রুশপন্থিরা মাথাচাড়া দেয়ার পর থেকেই ইউক্রেন সরকারকে সামরিক সহায়তা দিয়ে আসছে যুক্তরাষ্ট্র ও কানাডা। তবে সে অস্ত্রের কতটা সামরিক বাহিনী ব্যবহার করছে তা নিয়ে সংশয় প্রকাশ করে রাশিয়া। মস্কো বলছে, এসব অস্ত্রের অনেকটাই মধ্যপ্রাচ্যে আইএসের মতো জঙ্গিদের হাতে চলে যেতে পারে।
রাশিয়ার উপ-পররাষ্ট্রমন্ত্রী ‍গ্রেগোরি কারাসিন বলেন, অস্ত্রগুলো যে সঠিক হাতে পৌছাচ্ছে বিষয়টি ওয়াশিংটন এবং ওটোয়াকেই নিশ্চিত করতে হবে। তা যদি স্থানীয় সন্ত্রাসী গোষ্ঠি কিংবা ইউক্রেনের অস্ত্র ব্যবসায়ীদের মাধ্যমে মধ্যপ্রাচ্যের জঙ্গিগোষ্ঠিগুলোর হাতে পরে, তবে তা আঞ্চলিক স্থিতিশীলতাকে বিনষ্ট করবে। কারাসিনের মতে, ইউক্রেনের বর্তমান প্রশাসন এতোটাই দুর্নীতিগ্রস্থ যে, তাদের হাত দিয়ে যে কোন রকমের অনিষ্ট হতে পারে।

যুক্তরাষ্ট্র এবং কানাডার সমালোচনা করে কারাসিন বলেন, দু’দেশই আশার আলো ভান্ডার দেখিয়ে ইউক্রেনে একটি অভ্যন্তরীণ কোন্দল জিইয়ে রেখেছে। এই দুই দেশের পাশাপাশি ন্যাটোর বিভিন্ন সদস্য দেশ থেকে সামরিক বাহিনী ইউক্রেনের পূর্বাঞ্চলে এসে সেনাদের প্রশিক্ষণ দিচ্ছে। যার কারণে অঞ্চলটিতে বিদ্যমান উত্তেজনার প্রশমণ ঘটছে না।

রুশ মন্ত্রী এসময় আরো বলেন, সামরিক সহায়তার মাধ্যমে অভ্যন্তরীণ বিষয়ে হস্তক্ষেপ যুক্তরাষ্ট্রের জন্য নতুন কিছু নয়। এর আগে সিরিয়াতেও সরকারবিরোধীদের অস্ত্র সহায়তা দিয়েছিলো যুক্তরাষ্ট্র, যার বেশিরভাগই কিনা একপর্যায়ে আইএসের হাতে গিয়ে পড়ে। 

যমুনা অনলাইন: এএস

 

 

 









Leave a reply