পিতৃত্বকালীন ছুটিতে যাচ্ছেন জাপানের পরিবেশমন্ত্রী

|

হঠাৎ করেই আলোচনায় এসেছেন জাপানের পরিবেশমন্ত্রী শিনজিরো কোইজুমি।
দেশটির গণমাধ্যমসহ সোশ্যাল মিডিয়ায় তার নামই এখন চর্চিত হচ্ছে।

এর কারণ হিসেবে জানা গেছে, পিতৃত্বকালীন ছুটি নেয়ার সিদ্ধান্ত নিয়েছেন জাপানের এ মন্ত্রী।

বিবিসি জানায়, এ মাসেই সন্তানের বাবা হতে চলেছেন বলে জানিয়েছেন কোইজুমি। আর সন্তানের প্রথম মাসে দুই সপ্তাহের জন্য ছুটি নেবেন তিনি।

গতকাল বুধবার স্থানীয় গণমাধ্যমকে মন্ত্রী কোইজুমি বলেন, ‘সন্তান জন্মের পরের তিন মাসে মায়ের ওপর অনেক বেশি চাপ পড়ে। সামান্য ভুলে অনেক বড় ক্ষতি হওয়ার সম্ভাবনা থাকে। এ সময় স্ত্রী ও সন্তানের পাশে থাকা প্রতিটি পুরুষের কর্তব্য। তাই আমি ওই সময়টা স্ত্রী ও সন্তানের পাশে থাকতে চাই। অন্ততপক্ষে দুই সপ্তাহ ছুটি নিতে চাই।

এর পর জনগণকে আশ্বস্ত করে তিনি বলেন, ‘আমি ইতিমধ্যে প্রাতিষ্ঠানিক সব কাজ গুছিয়ে নিয়েছি। ই-মেইল ও ভিডিও কনফারেন্সের কাজগুলো সেরে নিচ্ছি এখন। আর বাণিজ্যিক সভাগুলোয় আমার স্থলে মন্ত্রিপরিষদের প্রতিনিধিরা থাকবেন। আশা করছি আমার অনুপস্থিতিতে কোনো সমস্যা হবে না।’

এ ছাড়া ছুটিকালীন পার্লামেন্টের অধিবেশনে উপস্থিত থাকবেন বলে জানান কোইজুমি।

এদিকে পিতৃত্বকালীন ছুটি নেয়ার সিদ্ধান্তে আলোচিত হচ্ছেন কোইজুমি।

কেননা জাপানের মন্ত্রিসভার কোনো সদস্য এই প্রথমবারের মতো পিতৃত্বকালীন ছুটি নিচ্ছেন।

তা ছাড়া সন্তান জন্ম নেয়ার পর এক বছরের জন্য কর্মস্থল থেকে ছুটি নিয়ম থাকলেও কাজের চাপে অনেক পুরুষই ছুটি নিতে পারেন না।

২০১৮ সালে মাত্র ৬ ভাগ বাবা এই ছুটি পেয়েছেন।

প্রসঙ্গত ফরাসি বংশোদ্ভূত জাপানি সংবাদ ক্রিস্টেল তাকিগাওয়াকে (৪২) বিয়ে করেছেন। কোইজুমি জাপানের সাবেক প্রধানমন্ত্রী জুনিচিরো কোইজুমির দ্বিতীয় সন্তান।









Leave a reply