গোপীবাগে সংঘর্ষ: আওয়ামী লীগের মামলা

|

রাজধানীর গোপীবাগ-দিলকুশা এলাকায় নির্বাচনী প্রচারণা চলাকালে দক্ষিণ সিটির নৌকা প্রতীকের মেয়র প্রার্থী শেখ ফজলে নূর তাপস এবং ধানের শীষের মেয়র প্রার্থী ইশরাক হোসেনের সমর্থকদের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া ঘটনায় ওয়ারী থানায় আওয়ামী লীগের পক্ষে একটি মামলা হয়েছে।

সংঘর্ষের ঘটনায় ওয়ার্ড অওয়ামী লীগ নেতা মাকসুদ আহমেদ বাদী হয়ে এই মামলা দায়ের করেছেন বলে ওয়ারি থানার পরিদর্শক (তদন্ত) মোস্তাফিজুর রহমান জানান। তবে কাকে বা কয়জনকে আসামি করা হয়েছে তা জানা যায়নি।

এদিকে বিএনপির পক্ষ থেকে থানায় মামলা করতে গেলে ফিরিয়ে দেওয়া হয়েছে বলে অভিযোগ পাওয়া গেছে।

এরআগে দুপুর ১টার দিকে এ সংঘর্ষ শুরু হয়ে চলে আধাঘণ্টা। পরে পুলিশ এসে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে নেয়।

জানা যায়, সকালে মতিঝিল থেকে বিএনপির মেয়র প্রার্থী ইশরাক হোসেন জনসংযোগ শুরু করেন। দিলকুশা-ইত্তেফাক মোড় হয়ে টিকাটুলি আসার পর, সেখানে একটি নির্মাণাধীন ভবনের নীচে নৌকার প্রতীক প্রার্থী শেখ ফজলে নূর তাপসের সমর্থকদের সাথে শুরু হয় বাকবিতণ্ডা। একপর্যায়ে, সেটি গড়ায় হাতাহাতি-মারামারিতে। মুহুর্তেই লাঠিসোটা নিয়ে উভয়পক্ষের মধ্যে ধাওয়া-পাল্টা ধাওয়া শুরু হয়। শোনা যায় বেশ কয়েক রাউন্ড গুলির শব্দও। ২৫ মিনিট পর পুলিশের একটি দল এসে পরিস্থিতি ঠাণ্ডা করে। এ ঘটনায় সময় টিভির ক্যামেরাপারসন আশরাফুল ইসলামসহ আহত হয়েছে কয়েকজন।









Leave a reply