বরগুনা আমতলী থানার ওসির (তদন্ত) কক্ষে এক ব্যক্তির ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার

|

বরগুনার আমতলী থানার ওসি তদন্তের রুমে সানু হাওলাদার নামে এক ব্যক্তির ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার হয়েছে। এরপরই নিহতের পরিবারের পক্ষ থেকে তাকে হত্যার অভিযোগ উঠেছে, যদিও পুলিশের দাবি আত্মহত্যা করেছেন তিনি।

স্বজনদের ভাষ্য, স্থানীয় এক কৃষক হত্যা মামলায় এজাহারভূক্ত আসামি ছিলেন সানুর সৎ ভাই ইব্রাহিম। ওই মামলায় সন্দেহভাজন আসামি হিসেবে গেল রোববার সানু হাওলাদারকে ধরে নিয়ে যায় আমতলি থানা পুলিশের একটি দল। তাদের মধ্যে ছিলেন ওসি (তদন্ত) মনোরঞ্জন মিস্ত্রি ও ডিউটি অফিসার আরিফ।

স্বজনদের অভিযোগ, তাদের কাছে ৩ লাখ টাকা ঘুষ দাবি করলে ১০ হাজার টাকা দেন তারা, এতে ক্ষুব্ধ হয় দুই পুলিশ। এরপর, থানায় নিয়ে বুধবার রাতে তাকে পিটিয়ে হত্যা করা হয় বলে অভিযোগ করে পরিবার।

এরমধ্যেই, ঘটনার অনুসন্ধানে তিন সদস্যর তদন্ত কমিটি গঠন করেছে পুলিশ। সাময়িক বরাখাস্ত করা হয়েছে অভিযুক্ত দুই পুলিশকে।









Leave a reply