প্রক্রিয়াজাত সম্ভব এমন আলুর উৎপাদন বৃদ্ধিতে কাজ করছে কৃষি বিভাগ

|

প্রক্রিয়াজাত সম্ভব এমন আলুর উৎপাদন বৃদ্ধিতে কাজ করছে কৃষি বিভাগ

প্রক্রিয়াজাতকরণ সম্ভব এমন বেশ কয়েকটি জাতের আলু চাষ ও উৎপাদন বাড়াতে কাজ করে যাচ্ছে কৃষি বিভাগ।

নীলফামারীর ডোমার ‘ভিত্তি’ আলুবীজ উৎপাদন খামার পরিদর্শনে গিয়ে এ কথা বলেন ড. আব্দুর রাজ্জাক।

মন্ত্রী বলেন, শীতপ্রবণ এলাকা হওয়ার কারণে নীলফামারীসহ দেশের উত্তরাঞ্চল আলু চাষের জন্য ভীষণ উপযোগী। বর্তমানে দেশে ১ কোটি টনেরও বেশি আলুর উৎপাদন হচ্ছে। কিন্তু এসব আলুতে পানির পরিমান গড়ে ৮০ শতাংশের বেশি থাকার কারণে রফতানি ও প্রক্রিয়াজাতকরণ সম্ভব হয়না। রফতানি চাহিদা বিবেচনায় অধিক শুস্ক জাতের আলু’র আবাদ হচ্ছে।

এ সময় রফতানীযোগ্য আলুর প্লট, আলু ফসলের মিউজিয়াম, ড্রাগন ও খেজুর বাগান পরিদর্শন করেন কৃষিমন্ত্রী।









Leave a reply