টেকনাফে নিখোঁজ রোহিঙ্গা শিশুর হাত কাটা মরদেহ উদ্ধার

|

কক্সবাজার প্রতিনিধি:

কক্সবাজারের টেকনাফে রোহিঙ্গা ক্যাম্প থেকে নিখোঁজ শাহিনুর (৮) নামে এক শিশুর হাত কাটা মরদেহ উদ্ধার করেছে আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন (এপিবিএন)।

শুক্রবার বিকেলে নয়াপাড়া রোহিঙ্গা শরণার্থী ক্যাম্প সংলগ্ন পাহাড়ের পাদদেশ থেকে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করা হয়। গত ২ মার্চ থেকে শিশুটি নিখোঁজ ছিল।

আর্মড পুলিশ ব্যাটালিয়ন ১৬ এর অধিনায়ক পুলিশ সুপার তারিকুল ইসলাম জানান, টেকনাফের নয়াপাড়া রেজিস্টার্ড শরণার্থী ক্যাম্প বাসিন্দাদের কাছ থেকে খবর পেয়ে টেকনাফ মডেল থানা পুলিশ ও ক্যাম্পে দায়িত্বরত এপিবিএন পুলিশের পৃথক দল সি-ব্লকের পার্শ্ববর্তী পশ্চিমের পাহাড় হতে শিশুটির মরদেহ উদ্ধার করে।

এসময় শিশুটির মুখমণ্ডল বিকৃত ও একটি হাত বিচ্ছিন্ন ছিল। নিহত শিশু নয়াপাড়া রেজিস্টার্ড ক্যাম্পের বি-ব্লকের (শেড নং-১০৫২/৪ এবং এমআরসি নং-০৩৩৭৩ এর) বাসিন্দা মো. জাবেরের মেয়ে। পুলিশ সুরতহাল রিপোর্ট তৈরির পর মরদেহ ময়নাতদন্তের জন্য কক্সবাজার সদর হাসপাতাল মর্গে প্রেরণ করেছে। এব্যাপারে আইনগত প্রক্রিয়া চলছে বলে জানান তারিকুল ইসলাম।

ক্যাম্পের রোহিঙ্গা নেতা মৌলভী সানাউল্লাহ জানান, দিন দুপুরে মেয়েটি নিখোঁজ হয়ে গেল, তিনদিন পর ক্ষতবিক্ষত অবস্থায় মরদেহ পাওয়া গেল। ছোট শিশুটির সাথে কেন এমন বর্বরতা তা ধারণা করতে পারছেন না কেউ। তবে হত্যার আগে মেয়েটিকে যৌন নির্যাতন করা হয়ে থাকতে পারে ধারণা করছেন অনেকে। ময়নাতদন্ত রিপোর্ট পেলে হয়তো তা জানা যাবে বলে জানান তিনি। মেয়েটির পরিধেয় স্বর্ণের গহনাও হত্যাকারীরা নেয়নি বলে জানান তিনি।









Leave a reply