রয়টার্সের প্রতিবেদনের পর ১৬ জনের ‘বিচারের’ কথা বলছে মিয়ানমার

|

রাখাইনে রোহিঙ্গা গণহত্যার সাথে জড়িত নিরাপত্তা বাহিনীর সদস্যদের বিরূদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা গ্রহণ করবে মিয়ানমার। রোববার প্রেসিডেন্ট অফিস থেকে এ ঘোষণা দেয়া হয়।

প্রেসিডেন্টের মুখপাত্র জাও তে জানান, বার্তা সংস্থা-রয়টার্সের প্রকাশিত ছবি দেখে চিহ্নিত করা হয়েছে অভিযুক্তদের। এদের মধ্যে রয়েছেন ৭ সেনা, তিন পুলিশ সদস্য ও ছয় বৌদ্ধ গ্রামবাসী।

নিরাপত্তা সদস্যদের কোর্ট মার্শালের মুখোমুখি হতে হবে বলেও জানান তিনি। আন্তর্জাতিক মহলের নিন্দা-সমালোচনার পরও এতদিন জাতিগত নিধণের কথা অস্বীকার করছিলো সু চি প্রশাসন। এই প্রথমবার এ বিষয়ে তারা মুখ খুললো।

চলতি সপ্তাহে বার্তা সংস্থা রয়টার্সের অনুসন্ধানী প্রতিবেদনে বলা হয়, গত সেপ্টেম্বরে রাখাইনের ইন দিন গ্রামে ১০ রোহিঙ্গা হত্যার শিকার হন। পরে তাদের পুতে ফেলা হয় গণকবরে। প্রমাণ হিসেবে বেশ কয়েকটি ছবিও প্রকাশ করেছে সংস্থাটি।

এদিকে রোববার রাখাইনের সহিংসতা কবলিত এলাকা সফরের পর ব্রিটিশ পররাষ্ট্রমন্ত্রী বরিস জনসন বলেন, রাজ্যটিতে ঘটে যাওয়া নৃশসংতার ব্যাপারে ওয়াকিবহাল নন অং সান সু চি।









Leave a reply