মারা গেলেন ছিনতাইকারীর হাতে আহত সেই নার্স

|

ফরিদপুর প্রতিনিধি

৫ দিন ঢাকার নিউরোসাইন্স হাসপাতালে লাইফ সাপোর্টে থাকার পরে আজ বৃহস্পতিবার সকালে মৃত্যুবরণ করেছেন ছিনতাইকারীদের কবলে পড়ে আহত ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালের সিনিয়র স্টাফ নার্স অরুনীমা বিশ্বাস। দুই দিন আগেই অরুনীমাকে ক্লিনিক্যালি ডেড ঘোষণা করেছিল চিকিৎসকরা। তারপরও লাইফ সাপোর্টে রাখা হয় তাকে। আজ সকাল ৯ টার দিকে লাইফ সাপোর্ট খুলে নিলে মৃত্যুর কোলে ঢলে পড়েন অরুনীমা।

নিহত অরুনীমা বিশ্বাস ফরিদপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালের জ্যেষ্ঠ স্টাফ নার্স ও একই সাথে নার্স সুপারভাইজার ছিলেন। তিনি ওই হাসপাতালেরই নাক, কান, গলা বিভাগের সহযোগী অধ্যাপক নৃপেন্দ্রনাথ বিশ্বাসের স্ত্রী।

উল্লেখ্য যে, গত শনিবার সকালে অরুনিমা রিকশাযোগে তাঁর কর্মস্থল ফরিদপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতালে যাচ্ছিলেন। সকাল সাড়ে ৭টার দিকে শহরের ঝিরটুলী এলাকার সদর ভূমি অফিসের সামনে মোটরসাইকেলে করে এসে দুই ছিনতাইকারী তার হাত থেকে ভ্যানিটি ব্যাগ ছিনিয়ে নেয়। এ সময় অনিমা রিকশা থেকে পাকা সড়কের ওপর পড়ে মাথায় গুরুতর আঘাত পান তিনি। তাঁকে প্রথমে ফরিদপুর মেডিক্যাল কলেজ হাসপাতাল ও পরে এয়ার অ্যাম্বুলেন্সে করে ঢাকায় নেওয়া হয়।

ফরিদপুর কোতোয়ালি থানার অফিসার ইন চার্জ (তদন্ত) বিপুল কুমার দে এই ঘটনায় কেউ থানায় অভিযোগ করেনি জানিয়ে বলেন, পুলিশ ছিনতাইকারীদের ধরতে তৎপর রয়েছে। অরুনীমা’র মেয়ে প্রাপ্তি বিশ্বাস ফরিদপুর ডায়াবেটিক মেডিক্যালে এমবিবিএস পড়ছেন। ছেলে প্রত্যয় বিশ্বাস সপ্তম শ্রেণির ছাত্র। অরুনীমা ও নৃপেন দম্পতি শহরের ঝিলটুলী দক্ষিণ কালীবাড়ী এলাকার একটি ফ্লাটে থাকতেন।









Leave a reply