তারকাভক্তির অনন্য দৃষ্টান্ত!

|

চলচ্চিত্র তারকা মানেই তাকে ঘিরে ভক্তের ভিড়। যেখানে যাবেন, পিছু নেবে অনুরাগীরা। কেউ উপহার নিয়ে বাড়ি চলে আসে, কেউ আবার ভালোবেসে সন্তানের নাম রাখে তারকার নামে। কিন্তু নিজের স্থাবর-অস্থাবর সব সম্পত্তি কেউ কি কখনও পছন্দের তারকার নামে লিখে দেন! হ্যা, এমনই অভাবনীয় ঘটনা ঘটেছে বলিউড সুপারস্টার সঞ্জয় দত্তের সাথে।

মুম্বাইয়ের মালাবার হিল এলাকার বাসিন্দা নিশি হরিশ্চন্দ্র ত্রিপাঠি তার সব সম্পদ রেখে গেছেন তার স্বপ্নের তারকা সঞ্জয় দত্তের নামে। কে এই ত্রিপাঠি? সঞ্জয় দত্ত নিজেও জানেন না। গত ২৯ জানুয়ারি পুলিশ তাঁকে ফোন করে জানায়, দুই সপ্তাহ আগে ওই মহিলার মৃত্যু হয়েছে এবং তিনি তার সব টাকা পয়সা আর ব্যাংকের একটা লকার সঞ্জয়ের নামে লিখে গেছেন।

নিশি ত্রিপাঠির এমন সঞ্জয় প্রীতির কথা তার পরিবারের কারোরই জানা ছিলো না। সম্পত্তিতে সঞ্জয়ের মালিকানা নিশ্চিত করতে ব্যাংককে পাঠানো নিশির অগণিত চিঠি দেখে তারাও হতবাক।  গত ১৫ জানুয়ারি দুরারোগ্য ব্যাধিতে আক্রান্ত হয়ে মারা যান ৬২ বছর বয়সী নিশি। মালাবার হিলে তাদের যেই ফ্ল্যাট রয়েছে তার দাম ১০ কোটি রুপিরও বেশি।

ব্যাংক অব বারোদার ওয়াকেশ্বর ব্রাঞ্চে চিঠি পাঠিয়ে সঞ্জয় দত্তের আইনজীবী জানিয়ে দিয়েছেন, নিশি ত্রিপাঠির সম্পত্তি চান না সঞ্জয়। ব্যাংক লকারটি তার পরিবারের কাছে হস্তান্তর করা হোক। লকারে কি আছে, তা জানা যায়নি। আইনি প্রক্রিয়া বাকি থাকায় লকারটি এখনও খোলা হয়নি।

সম্পত্তি ফিরিয়ে দিলেও ভক্তের এমন ভালোবাসায় অভিভূত সঞ্জয় দত্ত। কলকাতায় শুটিংয়ের সময় তিনি এ বিষয়ে জানতে পেরে হতবাক হয়ে যান তিনি। বলেন, “৪ দশকে ভক্তদের অনেক রকম কাণ্ড দেখেছি। কিন্তু এই ঘটনা আমাকে নাড়িয়ে দিয়েছে। আমি কোন কিছুতেই দাবি রাখছি না। নিশিকে আমি চিনি না। তবে তার ভালোবাসার এই নিদর্শনে আমি অভিভূত। ধন্যবাদ।”









Leave a reply