কোটায় যোগ্য প্রার্থী না থাকলে মেধা তালিকা থেকে নিয়োগ

|

এখন থেকে সরকারি চাকরিতে সংরক্ষিত কোটায় যোগ্য লোক না থাকলে মেধা তালিকা থেকে নিয়োগ দেয়া হবে। এমন সিদ্ধান্তের কথা জানিয়েছেন জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব ড. মোঃ মোজাম্মেল হক খান। তিনি জানান, কোটায় নিয়োগের জন্যই পর্যাপ্ত সংখ্যাক যোগ্য চাকরি প্রার্থী পাওয়া যাচ্ছে না।

বৃহস্পতিবার সকালে মন্ত্রণালয়ে গণমাধ্যমকর্মীদের প্রশ্নের জবাবে তিনি এসব কথা বলেন।

সরকার সরকারি চাকরির বয়সসীমা বাড়াতে যাচ্ছে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি জানান, এখনও এ বিষয়ে কোনো কিছু ভাবছে না সরকার।

কোটা সংস্কার করা হচ্ছে কিনা এমন প্রশ্নের জবাবে তিনি জানান, সময় বলে দিবে কখন কোটা সংস্কার করা হবে। এখন কোটা পদ্ধতি সংস্কারের পরিকল্পনা নেই।

কোটা প্রার্থীদের অবহেলা করা হচ্ছে না উল্লেখ করে তিনি বলেন, তাদের জন্য সংরক্ষিত কোটা থাকছে। প্রার্থী পাওয়া না গেলে তখনই কেবল যোগ্য প্রার্থীদের দিয়ে শূন্য পদ পূরণ করা হবে। আমি মনে করি এটাই সকলের জন্য গ্রহণযোগ্য একটি সমাধান।

এর আগে বুধবার (৭ মার্চ) ২০১০ সালের একটি নিয়োগ বিজ্ঞপ্তির মুক্তিযোদ্ধা কোটার শর্ত শিথিল করে সব কোটার ক্ষেত্রে শূন্যপদে মেধাবীদের নিয়োগের নির্দেশনা দিয়ে আদেশ জারি করেছে জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়।

চাকরিতে কোটার প্রার্থী না পাওয়া গেলে ওই আদেশে শীর্ষ মেধাবীদের নিয়োগের নির্দেশনা দেওয়া হয়। একই আদেশে এই কোটার শূন্যপদ পূরণে মেধাবীদের নিয়োগ দেওয়ার নির্দেশনা নিয়ে অস্পষ্টতা দেখা দিয়েছিল।

এই নির্দেশনা বিসিএস ও অন্য সব সরকারি চাকরির ক্ষেত্রে প্রযোজ্য হবে বলেই জানালেন জনপ্রশাসন মন্ত্রণালয়ের সিনিয়র সচিব ড. মোঃ মোজাম্মেল হক খান।

যমুনা অনলাইন: টিএফ









Leave a reply