রাশিয়ায় প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোটগ্রহণ চলছে

|

রাশিয়ায় শুরু হয়েছে প্রেসিডেন্ট নির্বাচনের ভোটগ্রহণ। দেশটিতে ১১টি আলাদা টাইম জোন থাকায়, প্রায় ২২ ঘণ্টা ধরে চলবে ভোটাভুটি।
দেশটির পূর্বাঞ্চলীয় দুই রাজ্য কামচাটকা এবং চুকোতকা’য় চলছে ভোটগ্রহণ।

স্থানীয় সময় সকাল ৮টা থেকে বিকেল ৫টা পর্যন্ত নেয়া হবে ভোট। এই রাজ্যগুলোর ৯ ঘণ্টা পর, রাজধানী মস্কোতে আনুষ্ঠানিকভাবে শুরু হবে ভোটাভুটি। দেশজুড়ে ৯৭ হাজার কেন্দ্র স্থাপন করা হয়েছে; ভোটার সংখ্যা ১০ কোটি ৮ লাখের বেশি। এরইমধ্যে ভোট দিয়েছেন ৩০ হাজার প্রবাসী রুশ।

রাশিয়ার প্রেসিডেন্ট নির্বাচনে জনপ্রিয়তার দিক থেকে একচেটিয়া অবস্থানে রয়েছেন ভ্লাদিমির পুতিন। পুতিনকে টক্কর দিতে পারতো একমাত্র অ্যালেক্সাই নাভালনি। অযোগ্য ঘোষণা করে আগেই সেই পথের কাটা সরিয়ে দিয়েছে নির্বাচন কমিশন। এখনও মাঠে ৮ প্রার্থী; কিন্তু তারা নামকাওয়াস্তা। তাই এবারের ভোটকে বলা হচ্ছে পুতিনকে ৪র্থ মেয়াদে প্রেসিডেন্ট পদে বৈধতার নিয়মরক্ষার আয়োজন। জরিপও বলছে তাই।

পুতিনের নির্বাচনী অভিযানে সবচেয়ে বড় চ্যালেঞ্জ ধরা হচ্ছে মার্কিন ও ইইউ’র নিষেধাজ্ঞা। যদিও এসব কাটিয়ে উঠবেন অচিরেই এমনটাই আশ্বাস পুতিনের। দিচ্ছেন কর্মসংস্থান তৈরি, কৃষি ও জ্বালানি খাতের আধুনিকায়ন, ও স্বাস্থ্যখাতে বিনিয়োগ বাড়ানোর প্রতিশ্রুতিও। বিরোধীরা অবশ্য বলছেন, একতরফাভাবে ভোট পক্ষে আসাটা শুভলক্ষণ নয়, বরং একধরণের ভীতি থেকেই পুতিনকে ভোট দেবেন রুশরা।

ইউরোপের সাথে মস্কো’র দ্বন্দ্ব ঐতিহাসিক। সোভিয়েত ইউনিয়নের পতন হলেও যা বদলায়নি এখনও। মার্কিন নির্বাচনে রুশ যোগসাজশ বিতর্ক, ব্রিটেনের সাথে সর্বসাম্প্রতিক কূটনৈতিক টানাপোড়েন ও সিরিয়া সংকট সবখানেই সেই সংঘাত স্পষ্ট। এই অবস্থায় পুতিনের মাঝেই রুশরা দেখছেন তাদের কান্ডারি।

সোমবার নাগাদ প্রকাশিত হবে প্রাথমিক ফলাফল।









Leave a reply