চীনের সেই ভিআইপি অতিথি কিম’ই

|

গত কয়েক দিনের কানাঘুষা, গুঞ্জনই শেষ পর্যন্ত সত্যি হলো। উত্তর কোরিয়ার প্রেসিডেন্ট কিম জং উন এখন চীনে। এর আগে, চীনে একজন ভিআইপি অতিথির উপস্থিতি নিয়ে আন্তর্জাতিক গণমাধ্যমগুলো সরব ছিল। তথ্য-উপাত্ত বিশ্লেষণ করে অনেকে এই সিদ্ধান্তে এসেছিলেন যে এই ভিআইপি অতিথি উত্তর কোরিয়ার সর্বোচ্চ নেতা কিম। সেটিই সত্য হলো।

আকস্মিক এ সফরে চীনা প্রেসিডেন্ট শি জিনপিং এর সাথে বৈঠক করেন কিম। আশ্বাস দেন পারমাণবিক অস্ত্রমুক্ত কোরীয় উপদ্বীপ গড়ার। দায়িত্ব নেয়ার ৭ বছর পর প্রথমবারের মতো উত্তর কোরিয়ার সর্বোচ্চ নেতা কিম জং উন চীন সফর করলেন।

বহির্বিশ্ব থেকে অনেকটাই বিচ্ছিন্ন উত্তর কোরিয়ার প্রধান মিত্র হিসেবে পরিচিত চীন। সোমবার রাতে প্রেসিডেন্ট শি জিন পিং এর সাথে বৈঠকে আসন্ন কোরিয়া সামিট ও ডোনাল্ড ট্রাম্পের সাথে বৈঠকের এজেন্ডা নির্ধারণে আলোচনা করেন কিম উন। কোরীয় উপদ্বীপকে স্থিতিশীল রাখতে করণীয় নিয়েও আলোচনা হয় তাদের মধ্যে। সর্বোচ্চ নেতার এই সফর দু’দেশের সম্পর্ককে আরও দৃঢ় করবে বলে দাবি করেছে উত্তর কোরিয়ার রাষ্ট্রীয় গণমাধ্যম কেসিএনএ।

রোববার কঠোর গোপনীয়তার মধ্য দিয়ে ট্রেনযোগে ড্যানডং সীমান্ত দিয়ে চীনে প্রবেশ করেন কিম জং উন। এ সফরকে খুবই গুরুত্বপূর্ণ মনে করা হচ্ছে। কারণ একে দক্ষিণ কোরিয়া ও যুক্তরাষ্ট্রের সঙ্গে পারমাণবিক এবং দূরপাল্লার ক্ষেপণাস্ত্র নিয়ে উত্তর কোরিয়ার সম্ভাব্য আলোচনার প্রস্তুতি হিসেবে দেখা হচ্ছে। গত মাসেই যুক্তরাষ্ট্রের প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প কিমের সঙ্গে বৈঠক করার অভূতপূর্ব প্রস্তাব গ্রহণ করেন।

যমুনা অনলাইন: টিএফ









Leave a reply