যুবদল কর্মীকে পিটিয়ে ও কুপিয়ে হত্যা

|

চুয়াডাঙ্গা প্রতিনিধি

চুয়াডাঙ্গায় তুচ্ছ ঘটনাকে কেন্দ্র করে লালন (৩৪) নামে এক যুবদল কর্মীকে পিটিয়ে ও কুপিয়ে হত্যা করেছে দূর্বৃত্তরা। শুক্রবার রাত পৌনে ৯টার দিকে চুয়াডাঙ্গা শহরের ফার্মপাড়া এলাকায় এই ঘটনা ঘটে।

নিহত লালন একই এলাকার আনার আলীর ছেলে।

পুলিশ ও স্থানীয়রা জানায়, নিজ বাড়ির সীমানা স্থানে একটি নারিকেল গাছ নিয়ে বেশ কিছুদিন ধরে একই মহল্লার হাশেম আলীর ছেলে মিন্টু, পিন্টু ও টিপুদের সাথে লালনের বিরোধ চলে আসছিলো। এই বিরোধের জের ধরে শুক্রবার রাতে দু’পক্ষের লোকজন বিবাদে জড়ায়।

নিহতের স্ত্রীর বেলী খাতুনের অভিযোগ, কথাকাটাকাটির এক পর্যায়ে প্রতিপক্ষের মিন্টু, পিন্টু ও টিপুুসহ তাদের পক্ষের ১০/১৫ জন ধারালো অস্ত্রশস্ত্র নিয়ে হামলা করে। তারা লালনকে পিটিয়ে ও ধারালো অস্ত্র দিয়ে কুপিয়ে গুরুতর জখম করে।

পরে স্থানীয়রা লালনকে উদ্ধার করে চুয়াডাঙ্গা সদর হাসপাতালে নেওয়ার পথে তিনি মারা যান। হত্যার খবরে উত্তপ্ত হয়ে এলাকা। সদর থানা পুলিশ দ্রুত ঘটনাস্থলে পৌঁছিয়ে পরিস্থিতি নিয়ন্ত্রণে আনে।

অতিরিক্ত পুলিশ সুপার কলিমউল্লাহ (সদর সার্কেল) জানান, হত্যাকান্ডের সাথে জড়িতদের গ্রেফতারে পুলিশ অভিযান শুরু করেছে। একই সাথে ওই এলাকায় নতুন করে যাতে কোন অপ্রতীকর ঘটনা না ঘটে তার জন্য ওই এলাকায় অতিরিক্ত পুলিশ মোতায়েন করা হয়েছে।









Leave a reply