ক্লাসে দাঁড় করিয়ে রাখায় ছাত্রের আত্মহত্যা

|

শিক্ষকের হাতে অপমান সহ্য করতে না পেরে আত্মহত্যা করেছে পঞ্চম শ্রেণির এক শিক্ষার্থী। এ ঘটনা ঘটেছে ভারতের উত্তর প্রদেশের গোরক্ষপুর শহরে।

সেন্ট অ্যান্থনি স্কুলের ৫ শ্রেনির ছাত্র ১১ বছরের নবনীত প্রকাশকে ১৫ সেপ্টেম্বর ক্লাসরুমের বেঞ্চে দীর্ঘক্ষণ দাড় করিয়ে রাখেন এক শিক্ষক। এই লজ্জা আর মানসিক নির্যাতন সহ্য করতে পারেনি সে। বুধবার আত্মহত্যার উদ্দেশ্যে ইঁদুর মারার বিষ খায় নবনীত। হাসপাতালে নেয়া হলেও, বাচানো যায়নি নবনীতকে।

নবনীতের বাবা রবি প্রকাশ জানান, গত ১৫ সেপ্টেম্বর স্কুল থেকে ফেরার পর থেকেই নবনীত মানসিকভাবে বিপর্যস্ত ছিলো। বেঞ্চের ওপর দাড় করিয়ে রাখার শাস্তি তার মনে গভীর দাগ কাটে। যার পরিপ্রেক্ষিতেই সে বিষ খায়। তিনি দাবি করেন তার ছেলের মৃত্যুর জন্য স্কুল কর্তৃপক্ষই দায়ী।

রবি প্রকাশ থানায় গিয়ে ছেলেকে নির্যাতনের মাধ্যমে হত্যার অভিযোগ করলে পুলিশ ওই স্কুলের প্রধান শিক্ষক ও পরিচালক পরিষদের বিরুদ্ধে আত্মহত্যায় প্ররোচনার মামলা করে। এসএসপি অনিরুদ্ধ পঙ্কজ বলেন, আমরা ময়না তদন্তের রিপোর্টের জন্য অপেক্ষা করছি যে নবনীত আসলেই বিষ খেয়ে মারা গেছে কিনা।

টিবিজেড/









Leave a reply