উদযাপন নিয়ে ফিফার তদন্তের মুখে শাকিরি-জাকা

|

ফুটবল গোলের খেলা। গোল উদযাপনে কতকি করে থাকেন খেলোয়াড়রা। কিন্তু মাঝে মাঝেই সেসব উদযাপন ছাপিয়ে যায় আনন্দ অনুভূতি প্রকাশের সীমারেখা। সার্বিয়ার বিপক্ষে ম্যাচে যেমন গোল উদযাপন নিয়ে ফিফার তদন্তের মুখে পড়েছেন সুইজারল্যান্ডের দুই তারকা জর্ডান শাকিরি আর গ্রানিট জাকা।

জাকা-শাকিরির দুর্দান্ত নৈপুণ্যে সার্বিয়ার বিপক্ষে ২-১ গোলের জয় পেয়েছে সুইজারল্যান্ড। দু’জনেই করেছেন একটি করে গোল। এর মধ্যে ম্যাচের অন্তিম মুহূর্তে গোল করে জার্সি খুলে উদযাপনের জন্য মাঠেই হলুদ কার্ড দেখেন শাকিরি। তাতেই রেহায় মিলছে না, বরং জাকা-শাকিরি দু’জনকেই তদন্তের মুখোমুখি করার ঘোষণা দিয়েছে ফুটবলের সর্বোচ্চ সংস্থা- ফিফা।

শাকিরি ও জাকা দু’জনই আলবেনিয়া থেকে মাইগ্রেট করে সুইজারল্যান্ডের নাগরিকত্ব গ্রহণ করেছেন। দু’জনই কসোভোর ঐতিহ্য ধারণ করেন। বলকান অঞ্চলের জটিল রাজনৈতিক হিসেব নিকেশের ধারাবাহিকতায় আলবেনিয়া-কসোভোর সাথে সার্বিয়ার দীর্ঘ রাজনৈতিক সংঘাত চলে আসছে। কসোভোর স্বাধীনতা এখনো মেতে নিতে নারাজ সার্বিয়া। সেই সার্বিয়াকে হারানোটা তাই শাকিরি ও জাকা দুজনের জন্যই বিশেষ কিছু। দুজনেই গোল করার পর হাত দিয়ে ঈগলের মতো একটা প্রতীক দেখিয়েছেন, যা ছিল আলবেনিয়ার ফ্ল্যাগের মতো।

ম্যাচ শেষে সেটি খোলাসাও করেছেন জাকা। বলেন, আমার জন্য এটা সত্যিই একটা বিশেষ দিন। এই জয়টা আমি উৎসর্গ করছি আমার পরিবার, সুইজারল্যান্ড, আলবেনিয়া ও কসোভোকে। এই ভঙ্গিটা ছিল তাদের সবার জন্য, যারা আমাকে সমর্থন দিয়েছে। তিনি অবশ্য এ-ও বলেছেন, এটা আমাদের প্রতিপক্ষের উদ্দেশ্যে ছিল না। এটা সত্যিই একটা আবেগী ম্যাচ ছিল।

জর্ডান শাকিরিও রাজনীতির সাথে এই উদযাপনের সম্পর্ক নাকচ করে দিয়েছেন, এর সঙ্গে রাজনীতির কোনো সম্পর্ক নেই। এটা শুধুই ফুটবল।

তবে, ফিফা ব্যাপারটিকে খেলার মাঠে রাজনীতির বহিঃপ্রকাশ হিসেবে দেখছে যা সংস্থাটির আইন অনুযায়ী অপরাধ। শুধু জাকা-শাকিরিকেই তদন্তের মুখোমুখি হতে হচ্ছে তাই নয়, সার্বিয়ার দর্শক-সমর্থকদেরও আপত্তিকর মন্তব্য থেকে বিরত থাকতে সতর্কতা জারি করে ফিফা। সেই সাথে, রাজনৈতিক বিদ্বেষপ্রসূত মন্তব্যের জন্য সার্বিয়ার কোচ ম্লাডেন ক্রাস্তাজিককেও প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদের মুখোমুখি করার ঘোষণা দিয়েছে।

বুঝাই যাচ্ছে, রাজনৈতিক বিষয়াদি মাঠের খেলায় ভালোই উত্তেজনা ছড়াচ্ছে।

যমুনা অনলাইন: টিএফ









Leave a reply