অরিত্রির আত্মহত্যা: ভিকারুননিসা ছাত্রীদের নতুন কর্মসূচি

|

স্কুলে ডেকে নিয়ে নিজের সামনে বাবা-মাকে অপমান করায় ভিকারুননিসা নূন স্কুলের নবম শ্রেণির ছাত্রী অরিত্রি অধিকারীর আত্মহত্যার ঘটনায় আন্দোলনরত ছাত্রীরা নতুন কর্মসূচি ঘোষণা করেছে।

আন্দোলনরত ছাত্রীরা বুধবার সকাল থেকে কলেজের ফটকে অবস্থান নেবেন এবং বিচার না হওয়া পর্যন্ত সব পরীক্ষা বর্জনের কর্মসূচি ঘোষণা দেন।

মঙ্গলবার বিকাল সাড়ে ৪টার দিকে স্কুলের বেইলি রোড শাখায় দিনভর আন্দোলন শেষে শিক্ষার্থী ও অভিভাবকরা এই কর্মসূচি ঘোষণা করেন।

এ সময় তারা বলেন, শিক্ষামন্ত্রী তিন দিনের কথা বলেছেন, এর মধ্যে বিচার সম্পন্ন করা না হলে লাগাতার আন্দোলন অব্যাহত থাকবে। সকল পরীক্ষা বর্জনের ঘোষণা দেয়া হলো। বুধবার সকাল ১০টায় স্কুলের ১ নম্বর ফটকের সামনে তারা অবস্থান করবেন।

শিক্ষাপ্রতিষ্ঠানটিতে বার্ষিক পরীক্ষা চলছে। মঙ্গলবার দিনভর বাইরে ছাত্রী-অভিভাবকদের বিক্ষোভের মধ্যেও পরীক্ষা হয়েছে। অরিত্রি অধিকারীর আত্মহত্যার ঘটনার বিচারের দাবিতে আজ দিনভর বিক্ষোভ হয়। দুপুরে কয়েকটি বামপন্থী ছাত্র সংগঠনের নেতা-কর্মীরাও আন্দোলনে যোগ দিলে পুলিশ তাদের সরিয়ে দেয়। দুপুরের পর থেকে ছাত্রীদের একটি দল নিজেরাই থেমে থেমে বিক্ষোভ চালিয়ে যায়।

অরিত্রি অধিকারীর আত্মহত্যার কারণ অনুসন্ধানে মঙ্গলবার ৫ সদস্যের কমিটি গঠন করে দিয়েছেন হাইকোর্ট। একইসঙ্গে বিষয়টি অনুসন্ধান করে ১ মাসের মধ্যে প্রতিবেদন দাখিল করতে নির্দেশ দিয়েছেন আদালত।

এছাড়া আত্মহত্যার ঘটনায় মঙ্গলবার দুটি তদন্ত কমিটি করেছে শিক্ষা মন্ত্রণালয় এবং ভিকারুননিসা নূন স্কুল ও কলেজ কর্তৃপক্ষ। দুই কমিটিকে তিন দিনের মধ্যে প্রতিবেদন দিতে বলা হয়েছে।

সচিবালয়ে শিক্ষামন্ত্রী নুরুল ইসলাম নাহিদ বলেন, ওই ঘটনার তদন্তে মাধ্যমিক ও উচ্চশিক্ষা অধিদফতরের (মাউশি) ঢাকা আঞ্চলিক কার্যালয়ের পরিচালক মো. ইউসুফকে প্রধান করে তিন সদস্যের একটি কমিটি করা হয়েছে।

অন্য দুই সদস্য হলেন-মাউশির ঢাকা আঞ্চলিক কার্যালয়ের উপপরিচালক শাখাওয়াত হোসেন ও ঢাকা জেলা শিক্ষা কর্মকর্তা বেনজীর আহমেদ।

অন্যদিকে ভিকারুননিসার ভারপ্রাপ্ত অধ্যক্ষ নাজনীন ফেরদৌস সাংবাদিকদের বলেন, তাদের গঠিত কমিটির নেতৃত্ব দেবেন স্কুলের পরিচালনা পর্ষদের সদস্য মো. আতাউর রহমান (অভিভাবক প্রতিনিধি)। এ ছাড়া তিন্না খুরশীদ জাহান (নারীদের জন্য সংরক্ষিত পদের অভিভাবক প্রতিনিধি) এবং ভিকারুননিসার শিক্ষক ফেরদৌসী বেগম।









Leave a reply