প্রতিষ্ঠার চার বছরেও স্থায়ী ঠিকানায় যেতে পারেনি রাবিপ্রবি

|

প্রতিষ্ঠার চার বছরেও স্থায়ী ঠিকানায় যেতে পারেনি রাঙ্গামাটি বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি বিশ্ববিদ্যালয়। নিজস্ব ক্যাম্পাসের জন্য ৬৫ একর জমি অধিগ্রহণ করা হলেও শুরু হয়নি অবকাঠামো নির্মাণ। নানা সংকটের মধ্যেই চলছে বিশ্ববিদ্যালয়টির একাডেমিক কার্যক্রম।

তবলছড়িতে শাহ বহুমুখী উচ্চ বিদ্যালয়ের জায়গায় খোলা হয়েছে অস্থায়ী ক্যাম্পাস। চলতি বছর রিজার্ভ বাজারে শিশু নিকেতনের কক্ষ ভাড়া নিয়েও চলছে পাঠদান। এতে ব্যাহত হচ্ছে শিক্ষা কার্যক্রম।

পাহাড়ি-বাঙালি শিক্ষার্থীদের সামাজিক- সংস্কৃতির মেলবন্ধন ঘটানোর লক্ষ্যেই প্রতিষ্ঠা হয় এই উচ্চ শিক্ষাকেন্দ্র। একে একে চতুর্থ ব্যাচের ভর্তি প্রক্রিয়া সম্পন্ন হয়েছে বিশ্ববিদ্যালয়টিতে। কিন্তু ৪ বছর পার হলেও এখনও স্থায়ী ক্যাম্পাস, শিক্ষার্থীদের আবাসিক হল নির্মাণসহ অন্যান্য অবকাঠামোগত উন্নয়ন হয়নি।

দুটি বিভাগ শুরুতে চালু হলেও প্রস্তাব করা হয়েছে আরও ৭টির। ৪৬৫ জন শিক্ষার্থীর বিপরীতে শিক্ষক রয়েছে মাত্র ১৭ জন।

উপাচার্য ড. প্রদানেন্দু বিকাশ চাকমা বলেন, স্থায়ী ক্যাম্পাসের জন্য কাপ্তাই-আসামবস্তির সড়কের পাশে ৬৫ একর জমি অধিগ্রহণ করা হয়েছে। নানা সীমাবদ্ধতায় অস্থায়ী ক্যাম্পাসেই একাডেমিক কার্যক্রম কোন রকমে চালিয়ে নেয়ার কথাও জানান তিনি।

নিজস্ব ক্যাম্পাস হলেই শিক্ষার পূর্ণাঙ্গ পরিবেশ তৈরি হবে বলে আশাবাদি শিক্ষক-শিক্ষার্থীরা।









Leave a reply