কাশ্মির ইস্যুতে সংঘাত নয় বরং সংলাপ চায় পাকিস্তান

|

কাশ্মির ইস্যুতে সংঘাত নয় বরং সংলাপ চায় পাকিস্তান। সোমবার, যুক্তরাষ্ট্রে নিযুক্ত দেশটির রাষ্ট্রদূত আসাদ মজিদ খান এক সংবাদ সম্মেলনে বলেন, ভারতের কাণ্ডজ্ঞানহীন আচরণের কারণেই সাম্প্রতিক সংকটের শুরু।

এদিকে, আপাতত শান্ত পরিস্থিতি বিরাজ করছে ভারত-পাকিস্তান সীমান্ত এলাকায়। গত ২৪ ঘণ্টায় নতুনভাবে কোন ধরণের গুলিবিনিময় বা বোমাবর্ষণ হয়নি। ফলে স্বাভাবিক জীবনে ফিরতে শুরু করেছে সীমান্তবর্তী গ্রামগুলো। খুলে দেয়া হয়েছে শিক্ষা প্রতিষ্ঠান ও কর্মস্থল। সীমিত পরিসরে, সীমান্তে আটকে থাকা পণ্যবাহী ট্রাকগুলোরও চলাচল শুরু হয়েছে।

অন্যদিকে এক সপ্তাহের বেশি সময় বন্ধ থাকার পর চালু হলো ভারত-পাকিস্তানের মধ্যে যোগাযোগের জন্য ব্যবহৃত ট্রেন ‘সমঝোতা এক্সপ্রেস’। এ পরিস্থিতিতে, সীমান্ত লঙ্ঘন এবং যুদ্ধবিমান নিয়ে প্রতিবেশীর ভূখণ্ডে হামলা চালানোর বিষয়ে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়ের দৃষ্টি আকর্ষণ করেছে পাকিস্তান।

যুক্তরাষ্ট্রে নিযুক্ত পাকিস্তানের রাষ্ট্রদূত আসাদ মজিদ খান বলেন, স্পষ্টভাবে বলতে চাই, কাশ্মির ইস্যুতে কোন ধরণের সংঘাত চায় না পাকিস্তান। বরং, দায়িত্বশীল রাষ্ট্রের মতো সংকট সমাধাণে ভারতের সাথে সংলাপে বসতে চাই। একইসাথে আন্তর্জাতিক সম্প্রদায়কে বলবো, ভারতের ২৬ ও ২৭ ফেব্রুয়ারির আচরণ নোট করুন। তাদের কাণ্ডজ্ঞানহীন আচরণের কারণে দক্ষিণ এশিয়ার শান্তি বিনষ্ট হচ্ছে। প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান সবসময় বলেন, ছোট্ট ভুল থেকেই যুদ্ধ শুরু হয়। যা পরে কারোই নিয়ন্ত্রণে থাকে না।









Leave a reply