মোদির এন্টি-স্যাটেলাইট ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষাকে ‘সীমাহীন নাটক’ বললেন মমতা

|

অ্যান্টি-স্যাটেলাইট ক্ষেপণাস্ত্র পরীক্ষা করেছে ভারত। বুধবার ভারতবাসীর উদ্দেশে এক আকস্মিক ভাসণে এমনটাই দাবি করেছেন প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদি। সেই ভাষণের অব্যবহিত পরেই বিরোধী দলগুলি একের পর এক আক্রমণ করা শানানো শুরু করে প্রধানমন্ত্রীর উদ্দেশে।

তৃণমূল প্রধান ও পশ্চিমবঙ্গের মুখ্যমন্ত্রী মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় একের পর এক টুইট করে প্রধানমন্ত্রীকে আক্রমণ করে বললেন, সীমাহীন নাটক চলছে। আর, সেটা করছে এমনই একটি সরকার যাদের মেয়াদ ফুরিয়ে গিয়েছে।

অন্যদিকে কংগ্রেস সভাপতি রাহুল গান্ধী প্রতিরক্ষা গবেষণা সংস্থা ডিআরডিও-কে শুভেচ্ছা জানান। শুধু তাই নয়, প্রধানমন্ত্রী নরেন্দ্র মোদিকে ‘বিশ্ব নাটক দিবস’-এর জন্য অভিনন্দন জানান তিনি!

বুধবার সকালে ‘মিশন শক্তি’-র সফল সূচনা সম্বন্ধে দেশবাসীকে জানাতে গিয়ে মোদি বলেন, আমেরিকা, রাশিয়া এবং চীনের পর ভারতই হল চতুর্থ দেশ যারা অ্যান্টি স্যাটেলাইট মিসাইল নিয়ে পরীক্ষা করল।

বিরোধীদের দাবি, লোকসভা নির্বাচন শুরু হওয়ার ঠিক দু’সপ্তাহ আগে প্রধানমন্ত্রীর এই বিশেষ ঘোষণা আসলে রাজনৈতিক ফায়দা কুড়োনোর লক্ষ্যেই। মমতা বন্দ্যোপাধ্যায় সাফ জানান, নির্বাচন কমিশনের বেঁধে দেওয়া মডেল কোড অব কন্ডাক্ট লঙ্ঘন করা হচ্ছে বলে অভিযোগ জানিয়ে তিনি কমিশনকে চিঠি লিখবেন।

যদিও পরীক্ষার সাথে সংশ্লিষ্ট বিজ্ঞানীদের শুভেচ্ছা জানালেন মমতা। তিনি বলেন, “মহাকাশ নিয়ে এই সাফল্য আসলে বৈজ্ঞানিকদের দীর্ঘ গবেষণার জন্য পাওয়া। নরেন্দ্র মোদি তো সবকিছুর জন্যই নিজে কৃতিত্ব নিয়ে নেন। এক্ষেত্রেও সেটাই করেছেন। অথচ, তাঁর কৃতিত্ব দেওয়া উচিত ছিল সেইসব বিজ্ঞানী এবং গবেষকদের যাদের জন্য এই সাফল্য এলো”।

উত্তরপ্রদেশ থেকে একইরকম আরেকটি টুইট করেন সমাজবাদী পার্টির প্রধান অখিলেশ যাদব। তার জোট শরিক বহুজন সমাজ পার্টির মায়াবতীও এই অ্যান্টি-স্যাটেলাইট মিসাইল প্রকল্পটি থেকে রাজনৈতিক ফায়দা তুলছেন নরেন্দ্র মোদী, এই কথা বলে সরব হন।

সূত্র: এনডিটিভি, টাইমস অই ইন্ডিয়া।

যমুনা অনলাইন/কিউএস









Leave a reply