পরমাণু চুক্তি থেকে আংশিক সরে আসার ঘোষণা ইরানের, বাড়াবে ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণ

|

বিশ্বের ৬টি শক্তিধর দেশের সাথে করা পরমাণু চুক্তি থেকে আংশিকভাবে সরে আসার ঘোষণা দিয়েছেন ইরানের প্রেসিডেন্ট হাসান রুহানি। আজ বুধবার লাইভ টেলিভিশনে এক ভাষণে তিনি এ ঘোষণা দেন।

মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প ঐতিহাসিক এ পরমাণু সমঝোতা চুক্তি থেকে যুক্তরাষ্ট্রকে সরিয়ে নেয়ার এক বছরের মাথায় এ সিদ্ধান্ত নিলো ইরান। বার্তা সংস্থা এপি এ খবর দিয়েছে।

২০১৫ সালের জুন মাসে তেহরানের সঙ্গে পরমাণু ইস্যুতে ৬ জাতিগোষ্ঠী চুক্তি স্বাক্ষর করে। নিরাপত্তা পরিষদের ৫ সদস্য রাষ্ট্র (পি-ফাইভ) যুক্তরাষ্ট্র, যুক্তরাজ্য, ফ্রান্স, রাশিয়া ও চীনের সাথে চুক্তিতে স্বাক্ষর করা অন্য দেশটি ছিল জার্মানি।

চুক্তি অনুযায়ী ইরানের ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণ কার্যক্রম স্থিমিত করার বিনিময়ে যুক্তরাষ্ট্র তাদের আরোপিত নিষেধাজ্ঞার অনেকগুলো উঠিয়ে নেয়। কিন্তু পূর্বসূরী ওবামার আমলে স্বাক্ষরিত এই চুক্তিকে ‘ক্ষয়িষ্ণু ও পচনশীল’ আখ্যা দিয়ে গত বছরের মে মাসে তা থেকে যুক্তরাষ্ট্রকে প্রত্যাহারের ঘোষণা দেন মার্কিন প্রেসিডেন্ট ডোনাল্ড ট্রাম্প।

এরপর থেকে ইরানের ওপর মার্কিন নিষেধাজ্ঞা পুনর্বহাল করা হয়। অন্যদিকে ইউরোপীয় দেশগুলো এ সমঝোতা বাস্তবায়নের কথা মুখে বললেও কার্যত তারা কোনো পদক্ষেপ নেয়নি।

এর প্রেক্ষিতেই বুধবার হাসান রুহানি বলেন, একটি দেশের দ্বারা চুক্তির শর্ত লঙ্ঘিত হওয়ায় সেটির আরও কিছু শর্ত নিয়ে নতুন করে আলোচনা চায় তেহরান। আগামী ৬০ দিন পর্যন্ত তারা এজন্য অপেক্ষা করবে। এর মধ্যে ভালো কিছু না হলে ইউরেনিয়াম সমৃদ্ধকরণ বাড়িয়ে দেবে তারা।









Leave a reply