মোটরসাই‌কে‌লে ঘু‌রে বৌদ্ধ ম‌ন্দির প‌রিদর্শনে পটুয়াখালীর এস‌পি

|

পটুয়াখালী প্র‌তি‌নি‌ধি:

বৌদ্ধ পূর্ণিমা উপলক্ষে জেলা পুলিশের পক্ষ থেকে ব্যাপক প্রস্তুতি নেয়া হয়েছে। এরই ধারাবা‌হিকতায় মোটরসাই‌কে‌লে ঘু‌রে ঘু‌রে প্রত্যন্ত এলাকার সবক‌টি বৌদ্ধ ম‌ন্দির স‌রেজ‌মিন প‌রিদর্শন ক‌রে রী‌তিমত তাক লা‌গি‌য়ে দি‌লেন পটুয়াখালীর পু‌লিশ সুপার মোহাম্মদ মইনুল হাসান। পাশাপা‌শি জেলার সবগু‌লো গীর্জা প্যাগোডায় কড়া পু‌লিশী নিরাপত্তা বলয় তৈ‌রির ঘোষণা দেন। এতে বৌদ্ধ খ্রীষ্টান ধর্মালম্বীসহ সাধারণ মানু‌ষের ম‌ধ্যে পু‌লি‌শের নিরাপত্তা ব্যবস্থা নি‌য়ে স‌ন্তোষ প্রকাশ ক‌রতে দেখা গে‌ছে।

আজ সকালে পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মইনুল হাসানের সভাপতিত্বে তার সম্মেলন কক্ষে এবিষ‌য়ে এক সভা অনুষ্ঠিত হয়। সভায় সাবির্ক নিরপত্তা ও বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের করণীয় বিষয়ে বিস্তারিত আলোচনায় বৌদ্ধ সম্প্রদায়ের নেতৃবৃন্দ সহ বিভিন্ন থানার অফিসার ইনার্চজ এবং সুশীল সমা‌জের প্র‌তিান‌ধিসহ স্থানীয় সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।

পুলিশ সুপার মোহাম্মদ মইনুল হাসান জানান, ‘প্রতিটি মন্ডপে পুলিশের পোশাকে এবং সাদা পোশাকে সদস্যরা নিরাপত্তার দায়িত্ব পালন করবে। এ ছাড়া মন্ডপ গুলোতে সিসি টিভি ক্যামেরা স্থাপনের মাধ্যমে সার্বক্ষনিক মনিটরিংয়ের ব্যবস্থা রাখা হচ্ছে। কোথাও কোন অস্বাভাবিক পরিস্থিতি প্রতিয়মান হলে পুলিশ সদস্যরা সেখানে কাজ করবে। আশা করছি শতভাগ সুষ্ঠ একটি পরিবেশে এবারের বোদ্ধ পূর্ণিমার যাবতীয় আনুষ্ঠানিকতা শেষ হবে।’

বৌদ্ধ ধর্মীয় কল্যাণ ট্রাস্ট এর ট্রাস্ট্রি থেমংলা রাখাইন জানান, পটুয়াখালী জেলার সদর উপজেলা, কলাপাড়া এবং কুয়াকাটায় মোট ৪টি মন্ডপে বৌদ্ধ পূর্নিমার আয়োজন করা হবে।

এদিকে সার্বিক পরিস্থিতি বিবেচনায় এ বছর ফানুস উড়ানো এবং মেলার আয়োজন করা হয়নি। এদি‌কে পু‌লি‌শের কড়া নিরাপত্তা বলয় তৈ‌রি‌তে বৌদ্ধ ধর্মালম্বী‌দের ম‌ধ্যে স‌ন্তোষ প্রকাশ ক‌রে‌ছে। ই‌তিম‌ধ্যে পু‌লিশ সুপা‌রের নেতৃ‌ত্বে একদল পু‌লিশ কর্মকর্তা জেলার সবক‌টি মন্ড‌প স‌রেজ‌মিন প‌রিদর্শন ক‌রে‌ছেন। এসময় স্থানীয়‌দের সা‌থে মত‌বি‌নিময় ক‌রে তা‌দের সু‌বিধা অসু‌বিধার কথা শু‌নে তা‌দের সবধর‌নের সা‌র্বিক নিরাপত্তার পাশাপা‌শি সকল সহ‌যো‌গিতার আশ্বাস দেন।









Leave a reply