‘দয়া করে আপনারা এই জট ছুটানোর ব্যবস্থা নেন’

|

খুব গরমে, গাড়ির মধ্যে দুর্ভোগে আছি, বাচ্চাসহ সবাই অতিষ্ঠ। প্লিজ আপনারা এই জট ছুটানোর ব্যবস্থা নেন। এতো বড় জ্যাম আমরা কিভাবে বাড়ি যাবো। এমনটাই বলছিলেন এক নারী যাত্রী যিনি সকাল ৮ থেকে যানজটে আটকা পড়ে আছেন।

এদিকে টাঙ্গাইল মহাসড়কে বঙ্গবন্ধু সেতু এলাকা থেকে করটিয়া পর্যন্ত ২৫ কিলোমিটার এলাকায় তৈরি হয়েছে দীর্ঘ যানজট। এতে ভোগান্তিতে পড়েছেন যাত্রীরা।

আর এক যাত্রী বলেন, ওবায়দুল কাদেরকে চোখ খুলতে বলেন, জাগা আছেন নাকি ঘুমে। এমনভাবে ক্ষোভ প্রকাশ করছেন যাত্রীরা।

জানা যায়, বঙ্গবন্ধু সেতুতে টোল আদায় সাময়িক বন্ধ এবং অতিরিক্ত গাড়ির চাপে এই যানজটের সৃষ্টি হয়েছে। এতে ভোগান্তিতে পড়তে হচ্ছে যাত্রীদের। পুলিশ জানায় মধ্য রাত থেকে মহাসড়কে গাড়ির চাপ বাড়তে থাকে। এতে করে সেতুর সিরাজগঞ্জ অংশে গাড়ি চলতে না পারায় যানজটের সৃষ্টি হয়। সেতুর ওপর অতিরিক্ত চাপের কারণে সকাল থেকে টাঙ্গাইল অংশে টোল আদায় বন্ধ করে দেয় কর্তৃপক্ষ। এতে আরও দীর্ঘ হয় যানজট।

এদিকে গাজীপুরের ঢাকা-ময়মনসিংহ মহাসড়কে ধীরগতিতে চলছে যানবাহন। সকালে বৃষ্টির কারণে আরও ভোগান্তিতে পড়েছেন ঘরমুখো যাত্রীরা।









Leave a reply