শরীয়তপুরে নৌপথে চাঁদাবাজিকালে আটক ২

|

শরীয়তপুর প্রতিনিধি:

শরীয়তপুরের জাজিরা উপজেলার পদ্মা নদীর কলিকাল এলাকা থেকে নৌপথে চাঁদাবাজিকালে চাঁদাবাজ চক্রের দুই সদস্যকে আটক করেছে কোস্টগার্ড।

এরা হলো বড়কান্দি ইউনিয়নের সোহেল রানা এবং রজব আলী সরদার কান্দির সুজন সরদার।

এ ঘটানায় ৫ জনকে আসামী করে জাজিরা থানায় মামলা করেছে কোস্টগার্ড।

স্থানীয় ও কোস্টগার্ড সূত্রে জানা যায়, শরীয়তপুরের জাজিরা উপজেলার পদ্মা নদীর বিভিন্ন পয়েন্ট থেকে মালবাহি বাল্কহেড থেকে চাঁদা আদায় করে আসছিল স্থানীয় একটি চাঁদাবাজ চক্র। যথারীতি রোববার সকালে থেকে পদ্মা নদী দিয়ে চলাচলরত ট্রলার ও বাল্কহেড থেকে প্রকাশ্যে চাঁদা আদায় করছিল চক্রের সদস্যরা। গোপন সংবাদের ভিত্তিতে বাংলাদেশ কোস্টগার্ডের পদ্মাসেতুর কম্পোজিট স্টেশনের কন্টিনজেন্ট কমান্ডার আব্দুস সাত্তারের নেতৃত্বে একটি দল অভিযান চালায়। এ সময় পদ্মা নদীর চর কলিকাল এলাকায় প্রকাশ্যে চাঁদাবাজি দেখতে পেয়ে তাদের ধাওয়া করলে চক্রের দুই জনকে আটক করতো সক্ষম হলেও বাকি সদস্যরা পালিয়ে যায়। তাদের কাছ থেকে নগদ ২হাজার ৭শ টাকা ও একটি ট্রলার জব্দ করে।

আটককৃত সোহেল রানা ও সুজন স্বীকার করেন মনির মাদবর, আবুল সরদার ও মোখলেছ মাদবরের নির্দেশে তারা এ কাজ করে আসছিল।

কোস্টগার্ডের কন্টিনজেন্ট কমান্ডার আব্দুস সাত্তার জানান, গোপন সংবাদের ভিত্তিতে আমরা অভিযান চালাই। এ সমযয় নৌপথে চাঁদাবাজিকালে চক্রে দুইজনে আটক করি। জব্দকৃত মালামালসহ তাদেরকে জাজিরা থানায় সোপর্দ করা হয়েছে।

জাজিরা থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা বেলায়েত হোসেন জানান, এ ঘটনায় কোস্টগার্ড বাদি হয়ে ৫জনকে আসামী করে একটি মামলা করেছে। বাকি আসামীদের আটকের চেষ্টা চলছে।









Leave a reply