১১ দিন আগেই সামরিক প্রস্তুতি নিয়ে রেখেছিল ভারত: এনডিটিভি

|

বিশাল আকারে সামরিক সম্পন্ন করেই পূর্বপরিকল্পিতভাবেই কাশ্মির নিয়ে পদক্ষেপ নিয়েছে বিজেপি সরকার।

গতকাল সোমবার কাশ্মিরের বিশেষ মর্যাদা বাতিলের ১১ দিন আগ থেকেই এ পরিকল্পনা নেয়া হয়। এর পরিকল্পনা সম্পর্কে কাশ্মিরের কর্মকর্তাদের অবহিতও করেছিল বিজেপি সরকারের কর্মকর্তারা। খবর এনডিটিভি’র।

কাশ্মিরের বিশেষ মর্যাদা বাতিলের ফলে যে কোন অসন্তোষ মোকাবেলায় তাই আগে থেকেই সেখানে বিপুল সামরিক শক্তি মজুদ করেছিল কেন্দ্র সরকার। এটিও জানাছিল কাশ্মিরী কর্মকর্তাদের।

আর সে অনুযায়ী প্রস্তুতিও গ্রহণ করে কাশ্মির প্রশাসন। সেখানকার কর্মকর্তারা বলেছেন এমন নজিরবিহীন পদক্ষেপ কেন্দ্র সরকার আগে কখনো নেয়নি।

কেন্দ্র সরকারের এই সিদ্ধান্ত বাস্তবায়নের পদক্ষেপ শুরু হয় কাশ্মিরে প্রায় অর্ধলক্ষ আধাসামরিক বাহিনীর সদস্য মোতায়নের মাধ্যমে। সূত্র জানায় একটি পরিপূর্ণ যুদ্ধাবস্থায় যতটুকু প্রস্তুতি দরকার সে অনুযায়ী ভারতীয় বিমান বাহিনীর বোয়িং সি-১৭ গ্লোবমাস্টার উড়োজাহাজে করে সারাদেশ থেকে সেনাদের সেখানে মোতায়ন করা হয়। এক সপ্তাহেরও কম সসময়ে এসব সেনাদের সেখানে মোতায়ন করে ভারতীয় কেন্দ্র সরকার।

রোববার রাত থেকেই কাশ্মিরে ইন্টারনেট সেবা বন্ধ করে দেয়া হয়। শ্রীনগরে ইন্টারনেট সেবা বন্ধ করা হয় সকাল ১১টা থেকেই। মোবাইল ও টেলিফোন সেবা বন্ধ করা হয় ঘোষনার দিন ভোর ৪টা থেকে। তবে সেনারা যাতে যোগাযোগের ক্ষেত্রে কোন বাধার সম্মুখিন না হয় তার ব্যবস্থা করা হয় তাদের জন্য বিশেষে স্যাটেলাইট ফোনের মাধ্যমে।

যে কোন ধরনের পরিস্থিতি ঠেকানোর জন্য ৬০ জন অতিরিক্ত ম্যাজিস্ট্রেটও নিয়োগ দেয়া হয় সেখানে। যে কোন পরিস্থিতিতে দ্রুত গ্রেফতার ও পদক্ষেপ নেয়ার জন্য তৈরি করা হয় ৬টি অস্থায়ী করাগারও।









Leave a reply