ঢাবিতে আসন প্রতি লড়বে ৩৯ জন

|

ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ২০১৯-২০২০ শিক্ষাবর্ষে স্নাতক (সম্মান) প্রথম বর্ষে অনলাইন আবেদন প্রক্রিয়া শেষ হয়েছে। এ বছর পাঁচটি ইউনিটে মোট সাত হাজার ১১৮ আসনের বিপরীতে দুই লাখ ৭৬ হাজার ৩৯১ জন শিক্ষার্থী ভর্তির আবেদন করেছেন। এ হিসাবে প্রতি আসনে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করবেন ৩৯ জন শিক্ষার্থী। এ বছর সবচেয়ে বেশি প্রতিদ্বন্দ্বিতা হবে ‘চ’ ইউনিটে এবং কম ‘খ’ ইউনিটে।

গত ৫ আগস্ট অনলাইনে ভর্তি ইচ্ছুকদের অনলাইনে আবেদন গ্রহণ প্রক্রিয়া শুরু হয়। এ প্রক্রিয়া শেষ হয় ২৭ আগস্ট।

বিজ্ঞান অনুষদভুক্ত ‘ক’ ইউনিটের এক হাজার ৭৯৫টি আসনের জন্য ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নেয়ার জন্য আবেদন করেছেন ৮৮ হাজার ৯৭০ জন। এই ইউনিটে প্রতি আসনে লড়বেন ৪৯ জন। কলা অনুষদভুক্ত ‘খ’ ইউনিটের দুই হাজার ৩৭৮ আসনের জন্য ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নেবেন ৪৫ হাজার তিনজন, প্রতি আসনে লড়বে ১৮ জন।

ব্যবসায় শিক্ষা অনুষদভুক্ত ‘গ’ ইউনিটে এক হাজার ২৫০ আসনের জন্য ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নেবেন ২৮ হাজার ৯৫৮ জন। এই ইউনিটে প্রতি আসনে লড়বে ২৩ জন। সামাজিক বিজ্ঞান অনুষদভুক্ত ‘ঘ’ ইউনিটের এক হাজার ৫৬০ আসনের জন্য ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নেবেন ৯৭ হাজার ৪৬৪ জন। প্রতি আসনে লড়বে ৬২ জন।

চারুকলা অনুষদের ‘চ’ ইউনিটে ১৩৫ আসনের জন্য ১৫ হাজার ৯৯৬ জন পরীক্ষার্থী ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নেবেন। ‘চ’ ইউনিটে প্রতি আসনের জন্য ১১৮ জন পরীক্ষার্থী ভর্তি পরীক্ষায় অংশ নেবেন।

আগামী ১৩ সেপ্টেম্বর ‘গ’ ইউনিট দিয়ে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের ভর্তি পরীক্ষা শুরু হবে। ২০ সেপ্টেম্বর ‘ক’ ইউনিট, ২১ সেপ্টেম্বর ‘খ’ ইউনিট এবং ২৭ সেপ্টেম্বর ‘ঘ’ ইউনিটের ভর্তি পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। ‘চ’ ইউনিটের সাধারণ জ্ঞান অংশের পরীক্ষা আগামী ১৪ সেপ্টেম্বর এবং অঙ্কন অংশের পরীক্ষা ২৮ সেপ্টেম্বর অনুষ্ঠিত হবে।

এবার প্রথম ভর্তিচ্ছু শিক্ষার্থীদের এমসিকিউ পরীক্ষার পাশাপাশি লিখিত পরীক্ষায় অংশ নিতে হবে। মোট ১২০ নম্বরের মধ্যে এমসিকিউয়ের জন্য থাকবে ৭৫ নম্বর ও লিখিত পরীক্ষার জন্য থাকবে ৪৫ নম্বর।

৯০ মিনিটের পরীক্ষায় এমসিকিউ অংশের জন্য শিক্ষার্থীরা সময় পাবেন ৫০ মিনিট ও লিখিত পরীক্ষার জন্য ৪০ মিনিট। তবে ‘চ’ ইউনিটে ৫০ নম্বরের এমসিকিউ পরীক্ষার জন্য এক ঘণ্টা এবং ৭০ নম্বরের অঙ্কন পরীক্ষায় ৯০ মিনিট সময় পাবেন পরীক্ষার্থীরা।









Leave a reply