ফরিদপুরে সাবেক স্বামীর ছুরিকাঘাতে গৃহবধূর মৃত্যু

|

ফরিদপুর প্রতিনিধি

ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে চিকিৎসাধীন অবস্থায় রিক্তা বেগম(২২) নামে এক গৃহবধূর মৃত্যু হয়েছে। আজ মঙ্গলবার বেলা এগারোটার দিকে তার মৃত্যু হয়। এর আগে সোমবার রাত নয়টার দিকে ফরিদপুরের চরভদ্রাসন উপজেলার পরিষদ বাজারের ভিতর তাকে ছুরিকাঘাত করে তার প্রাক্তন স্বামী আলমগীর।

চরভদ্রাসন থানার ভারপ্রাপ্ত কর্মকর্তা রাম প্রসাদ ভক্ত জানান, গতরাতে রিক্তা একটি দোকান থেকে ঔষুধ নিয়ে বাড়ি ফেরার সময় বাজারের ভিতর পূর্বের স্বামীর সাথে কথাকাটকিাটির এক পর্যায়ে তাকে ছুরি দিয়ে আঘাত করে ওই স্বামী। এসময় রিক্তার চিৎকার শুনে প্রতিবেশীরা তাকে উদ্ধার করে চরভদ্রাসন হাসপাতালে নিয়ে আসে। সেখানে তার পেটে বিধে থাকা ছুরিটি ডাক্তাররা বের করতে না পেরে উন্নত চিকিৎসার জন্য ফরিদপুর মেডিকেল কলেজ হাসপাতালে পাঠায়। সেখানে আজ মঙ্গলবার বেলা এগারোটার দিকে চিকিৎসাধীন অবস্থায় তার মৃত্যু হয়।

তিনি আরও জানান, ঘাতক স্বামী আলমগীরের বাড়ী কুষ্টিয়ার দৌলতপুর থানার খরিবোনা গ্রামে। তাকে আটকের চেষ্টা চলছে। এ ব্যপারে একটি হত্যা মামলা প্রক্রিয়াধীন আছে বলেও তিনি জানান। আলমগীর ও রিক্তার সংসারে রাহুল নামে ৫ বছরের একটি ছেলে রয়েছে।

রিক্তার বর্তমান স্বামী জালাল জানান, রিক্তা তার পূর্বের স্বামী আলমগীরকে ডিভোর্স দিয়েছে অনকে আগেই। আমি ও রিক্তা দুই জনকে পছন্দ করে বিয়ে করে সংসার করছি। প্রশ্নের জবাবে জালাল জানায়, প্রথমে তারা গোপনে বিয়ে করলেও পরে তার পরিবারসহ সবাইকে জানানো হয়েছে বিয়ের বিষয়টি। তিনি দাবি করেন রিক্তাকে বিয়ের বিষয়টি তার প্রথম স্ত্রী খুশী বেগমও মেনে নিয়েছেন।









Leave a reply