দুই মাস পর ঘরে ফিরছে হুবেইয়ের মানুষ

|

দুই মাস ঘরবন্দি থাকার পরে মুক্তিটা যেন জীবন ফিরে পাওয়া। আর সেই জীবনটাই যেন ফিরে পেয়েছেন চীনের হুবেই প্রদেশের মানুষ। আজ থেকে তারা ছুটছে যে যার নিজ গন্তব্যে। করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ার পরে প্রায় দুই মাসের বেশি সময় শাটডাউন ছিলো হুবেই।

প্রিয়জনের সাথে অনেকদিন পর দেখা হবে বলে অনেকের মনে আনন্দ বাঁধ মানছে না। তাইতো ট্রেনে–বাসে ভিড় উপচে পড়া ভিড় দেখা গেলো হুবেইর গণপরিবহন স্টেশনগুলোতে।

আন্তর্জাতিক গণমাধ্যম সংস্থা এএফপি জানায়, হুবেইতে অবশেষে তুলে নেওয়া হচ্ছে সব ধরনের চলাচল প্রতিবন্ধকতা। এখন পর্যন্ত যারা সুস্থ্য হয়েছেন তারা বাড়ি ফিরে যেতে পারবেন। এরই ধারাবাহিকতায় মাচেংয়ের এক রেলস্টেশনে দেখা যায় এমন ভিড়। বৃষ্টি উপেক্ষা করেও মানুষ ট্রেনের জন্য অপেক্ষা করছেন।

একটু এগিয়েই দেখা যায় নিরাপত্তার এখনো কমতি নেই তাদের। শিশুদের মুখে মাস্ক পরানো রয়েছে। নিরাপত্তাকর্মীরা ভিড়ের মধ্যে লোকজনকে বিভিন্ন নির্দেশনা দিচ্ছেন। স্টেশনে বিভিন্ন গন্তব্যর ট্রেনের ঘোষণা দেওয়া হচ্ছে।

দেশের নিজস্ব বার্তা সংস্থা সিনহুয়ার খবরে বলা হয়, সবচেয়ে ক্ষতিগ্রস্ত শহর হুয়াংগ্যাংয়ের প্রবাসী শ্রমিকেরা ব্যাগ ও স্যুটকেস নিয়ে দূরপাল্লার গাড়ির জন্য লাইনে দাঁড়িয়েছেন। শ্রমিকদের একজন জনান, তিনি পূর্ব ঝেজিয়াং প্রদেশের ওয়েনঝোতে ফিরছেন। তিনি দুই মাসের বেশি সময় ধরে আটকে ছিলেন এখানে।

সিনহুয়া আরও জানায়, আজ থেকে উহান বাদে সব রেলস্টেশন ও বিমানবন্দর খুলে দেওয়া হয়েছে দেশটিতে। আজ সকালেই উহানের সঙ্গে সংযুক্ত ৩০টি হাইওয়ে খুলে দেওয়া হয়েছে। হুবেইর রাস্তাগুলোয় যানজটেরও সৃষ্টি হয়েছে বলে জানায় সিনহুয়া।

উল্লেখ্য, করোনাভাইরাস ছড়িয়ে পড়ায় গত জানুয়ারি মাসে হুবেই শাটডাউনের ঘোষণা দেয় বেইজিং। ভাইরাসে আক্রান্ত হয়ে দেশটিতে ৩ হাজার ২০০ জনের বেশি মারা গেছেন। তবে সম্প্রতি করোনায় আক্রান্ত মানুষের হার কমে যাওয়ার সেখানে শাটডাউন পরিস্থিতি শিথিল করা হলো।









Leave a reply