মায়ের কোল থেকে বাচ্চাকে কেড়ে নিয়ে হত্যা করলো বানর

|

নিজের বাড়ির সামনে বসে বাচ্চাকে বুকের দুধ খাওয়াচ্ছিলেন মা। মাত্র ১২ দিনের শিশু। হঠাৎ করে কোথা থেকে দৌড়ে এলো এক বানর। ছোঁ মেরে বাচ্চাটিকে কেড়ে নিলো মায়ের কোল থেকে। মা কিছু বুঝে ওঠার আগেই দৌড় দিল। ঘটনার বিহব্বলতা কাটিয়ে মা যখন চিৎকার দিলেন ততক্ষণে পাশের বাড়ির ছাদে উঠে গেছে বানরটি। বাচ্চাটিকে তখনো কামড় দিয়ে ধরে রেখেছে মুখে।

প্রতিবেশিরা যখন ধাওয়া শুরু করলেন, উপায়ন্তর না দেখে মুখ থেকে বাচ্চাটিকে ফেলে প্রাণ বাঁচালো বন্য প্রাণিটি। গায়ে মারাত্মকভাবে কামড়ানো শিশুটিকে উদ্ধারের পর হাসপাতালে নেয়া হয়। কিন্তু সেখানেই মারা যায় সে। এমন ঘটনায় শুধু ও পরিবার নয়, এলাকাবাসীও মর্মাহত।

বাচ্চাটির চাচা ধীরেন্দ্র কুমার বলেন, আমাদের এলাকায় এত বানর। এদের যন্ত্রণায় প্রাণ ওষ্ঠাগত। বারবার স্থানীয় প্রশাসনকে বলেও লাভ হয়নি। বাচ্চার মা এখন প্রায় বাকহারা হয়ে আছেন।

ভারতের আগ্রা শহরে সম্প্রতি বানরের উপদ্রব নতুন মাত্রায় পৌঁছেছে। নিয়মিত বানরের আক্রমণের শিকার হচ্ছেন মানুষজন। বাদ পড়ছেন না বিদেশি পর্যটকরাও।

পরিবেশকর্মী শ্রাবন কুমার সিনহা বলেন, আগ্রার সর্বত্র এখন বানর আর বানর। মূলত খাবার খুঁজতে এরা লোকালয়ে আসে। অনেক সময় খাবার না পেয়ে মানুষের ওপর হামলা করে। নিজেদের থাকার জায়গা থেকে উচ্ছেদ হওয়ার কারণেও অনেক বানর উগ্র হয়ে উঠছে।









Leave a reply