কোম্পানিগঞ্জে টাস্কফোর্সের ওপর পাথর খেকোদের হামলা

|

সিলেটের কোম্পানীগঞ্জের ভোলাগঞ্জ পাথর কোয়ারীতে অবৈধ বোমা মেশিনের বিরুদ্ধে টাস্কফোর্সের অভিযানে হামলা চালিয়েছে পাথর খেকোরা। এতে আনসারসহ ১৫ জন আহত হয়েছে। হামলাকারীদের ঠেকাতে শতাধিক রাউন্ড গুলি করে বিজিবি ও পুলিশ।

আহতরা হলেন রেলেওয়ে নিরাপত্তা বাহিনীর উপ-পরিদর্শক আমিনুল ইসলাম, বিজিবি ৪৮ ব্যাটালিয়নের সৈনিক হাসান মিয়া, সিপাহী রুহুল আমিন, নায়েক আব্দুর রহিম, উপজেলা ভূমি অফিসের কর্মচারী হেমায়েত হোসেন, উপজেলা প্রশাসনের শ্রমিক মোবারক, মো: মিজান, আলী হোসেন, শাহীন আহমেদ, আলমগীর, ইব্রাহীম মিয়া সহ আরো ৪ জন।

কোম্পানীগঞ্জ উপজেলা ভূমি কর্মকর্তা মাসুদ রানা জানান, উপজেলা নির্বাহী কর্মকর্তা বিজেন ব্যানার্জীর নেতৃত্বে বিজিবি ও পুলিশের সহায়তায় দুপুরে ভোলাগঞ্জ পাথর কোয়ারীতে পরিবেশ ক্ষতিকর অবৈধ বোমা মেশিনের বিরুদ্ধে অভিযানে নামেন তারা। এসময় দয়ার বাজার এলাকায় ১৫ টি বোমা মেশিন পুড়িয়ে দেয় টাস্কফোর্স।

এক পর্যায়ে স্থানীয় পাথর খেকো ও পূর্ব ইসলামপুর ইউনিয়ন আওয়ামী লীগের সহ-সভাপতি বিল্লাল ও কৃষক লীগ নেতা মছন হাজী এবং যুবলীগনেতা পরিচয় দানকারী আজিজের নেতৃত্বে তাদের ওপর হামলা চালায় কয়েকশ সন্ত্রাসী। সাথে যোগ দেয় বোমা মেশিনের শ্রমিকরা। এ সময় প্রাণ বাঁচাতে স্থানীয় একটি ঘরে আশ্রয় নিলে সেখানোও আক্রমণ করে সন্ত্রাসীরা।

এসময় কয়েকজন আনসার সদস্য সহ কমপক্ষে ১৫ জন আহত হন। পরিস্থিতি সামাল দিতে শতাধিক রাউন্ড ফাঁকা গুলি ছুড়ে বিজিবি ও পুলিশ। আহতদের কোম্পানীগঞ্জ হাসপাতালে চিকিৎসা দেয়া হচ্ছে।









Leave a reply