প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা সত্ত্বেও অতিরিক্ত হারে সুদ আদায় করছে অধিকাংশ ব্যাংক

|

ব্যাংকের আমানতের সর্বোচ্চ সদুহার হবে ৬ শতাংশ ও ঋণে ৯ শতাংশ। প্রধানমন্ত্রীর নির্দেশনা অনুযায়ী এমনই প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন বাণিজ্যিক ব্যাংকের পরিচালক ও ব্যবস্থাপকরা। ব্যাংকগুলো এটি বাস্তবায়নে সরকারের কাছ থেকে কর্পোরেট করহার কমানোসহ নানা সুযোগ-সুবিধাও পেয়েছে। কিন্তু কাজের কাজ কিছুই হয়নি। এখনও ১০ শতাংশের উপরে ঋণের সুদ আদায় করছে বেশিরভাগ ব্যাংক।

বাংলাদেশ ব্যাংকের সর্বশেষ প্রকাশিত প্রতিবেদন থেকে জানা গেছে, অক্টোবর মাস শেষে ২৯টি বাণিজ্যিক ব্যাংক ঋণের সুদহার ১০ শতাংশের বেশি আদায় করছে। আর ৩৬টি ব্যাংকের স্প্রেড ৪ শতাংশীয় পয়েন্টের উপরে রয়েছে। অক্টোবর শেষে ব্যাংকগুলোর গড় স্প্রেড দাঁড়িয়েছে ৪ দশমিক ২২ শতাংশ। এর মধ্যে অনেক ব্যাংক এখনও স্প্রেড নিচ্ছে ৮ শতাংশের উপরে। তারল্য ব্যবস্থাপনার ওপর বাড়তি চাপকে কেন্দ্র করে সুদহার বাড়তে থাকায় তা নিয়ন্ত্রণের উদ্যোগ নেয় কেন্দ্রীয় ব্যাংক।









Leave a reply